ব্লগিং

ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি

আপনারা অনেকেই ঈদের আগের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি না এসব বিষয়ে জানতে চান। যারা এ বিষয়ে জানতে চান তাদের জন্য আমাদের আজকের এই পোস্টটি। আজকে আমরা আলোচনা করব ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি (১০০% সঠিক তথ্য) এসব বিষয়ে। তাহলে চলুন দেরী না করে জেনে নিই, ঈদের আগের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি এসব বিষয়।

ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি

স্ত্রী সহবাস ও সদকা এক হাদীসে আবু যার (রাঃ) থেকে বর্ণিত হয়েছে। তারা বলেছিলেন, ইয়া রাসুল আল্লাহ যদি কেউ স্ত্রী সহবাস করে সেটাতেও কি সব পাওয়া যাবে?

তিনি উত্তরে বললেন, তুমি কি মনে কর যে, সে হারাম পন্থায় ব্যভিচার করলে তার গুনাহ হবে না? অবশ্যই. তবে সেই কামাচার যদি হালাল পন্থায় করা হয়, তাহলে সে সাওয়াব পাবে।

রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেনঃ যদি কোন ফল স্বামী বা স্ত্রীকে দেওয়া হয় এবং তাদের মধ্যে একটি সন্তান জন্ম নেয়, তবে শয়তান কখনই সেই সন্তানকে স্পর্শ করতে বা ক্ষতি করতে পারবে না। সেক্ষেত্রে এ প্রশ্ন অনেকের মনেই জাগে ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করলে কোন গুনাহ হবে কি?

উত্তরে তিনি বললেন, ঈদের রাতে বা দিনে স্ত্রীর সাথে সহবাস করা জায়েজ। কারণ, দ্বিতীয়বার এটি আরও প্রশান্তিদায়ক। শুধুমাত্র রমজানের দিনেই যৌন মিলনের অনুমতি নেই, এটা হারাম। তাছাড়া হজ ও ওমরার ইহরাম অবস্থায় তা হারাম। আর মহিলাদের জন্য মাসিক বন্ধ হওয়া হারাম।

See also  ফ্রিল্যান্সিং কি এবং এর কাজ সমূহ সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন

প্রিয় পাঠক আপনি এই পোষ্টে পড়তেছেন ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি এই বিষয় নিয়ে বিস্তারিত। এ সম্পর্কিত পুরো ব্লগটি পড়ার শ্রেষ্ঠা করুন যাতে সঠিক জানতে পারেন।

ঈদের আগের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি

ইসলাম বলে ঈদের আগের রাতে স্ত্রীর সাথে সহবাস করা যাবে কি না, মধ্যরাতের আগে সহবাস করা উচিত নয়। ফলের গাছের নিচে কোন নারীর সাথে সহবাস করবেন না। সহবাসের আগে প্রার্থনা করুন। এটি স্ত্রী সহবাসের বরকত

তারপর আলতো করে আলিঙ্গন চালিয়ে যান। স্ত্রী যদি ইচ্ছা করে তবে তাকে স্নেহ ও ভালবাসা দিন। তাহলে দুজনের মনেই সহবাসের ইচ্ছা জেগে উঠবে। তারপর বিসমিল্লাহ বলা শুরু করুন। স্ত্রী সহবাস করার সময় আপনার স্ত্রীর রূপের দিকে তাকান এবং তার শরীর স্পর্শ করুন এবং সহবাসের সুবিধার দিকে মনোযোগ দেওয়া ছাড়া পরবর্তী সুন্দরী স্ত্রী বা কোন সুন্দরী মেয়ের চেহারা নিয়ে ভাববেন না।

তার সাথে দেখা করার সুখ নিয়ে চিন্তা করবেন না। আর স্ত্রীরও তাই করা উচিত। ঈদের রাতে বা ঈদের আগের রাতে সহবাস করা জায়েয। শুধুমাত্র রমজান মাসে সহবাস করা হারাম

ঈদের রাতের ফজিলত

এ বছর সারা বিশ্বের মুসলমানদের জন্য একটি অত্যন্ত আনন্দের দিন। ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা মানে আমরা সাধারণত বলি ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা। নবী করিম (সা.) বলেছেন, প্রত্যেক দলেরই নিজস্ব উৎসব আছে, এই দুই ঈদ আমাদের ধর্মীয় উৎসব।

ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা মুসলমানদের দুটি ধর্মীয় উৎসব। ঈদের রাতে ইবাদত করা ঈদের রাতের ফজিলত অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ ও মর্যাদাপূর্ণ। হাদীস শরীফে এর বর্ণনা রয়েছে।

See also  বাংলাদেশ ন্যাশনাল ঈদ কার্ড চেক অনলাইন ট২১

ঈদের রাতের ফজিলত হলো, এ রাতে করা কোনো দোয়া ফেরত দেওয়া হয় না, তা সঙ্গে সঙ্গে কবুল হয়। এমনকি তা আল্লাহ তায়ালা সরাসরি কবুল করেছেন। অর্থাৎ এ রাতের গুরুত্ব ও ফজিলত অপরিসীম

আপনি ইতিমধ্যে ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি এই নিয়ে বেশ কিছু পয়েন্ট পড়ে নিয়েছেন। আর অল্প একটু পড়ে শেষ করে নিন।

ঈদের রাতের আমল

প্রত্যেক মুসলমানের ঈদ মানে খুশি, ঈদ মানে আনন্দ। ঈদ হল সেই ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের দেওয়া নাম যারা একটানা 30 দিন রোজা রাখে, নিজেদেরকে পরিশুদ্ধ করে এবং পরিবার ও সমাজ গঠনের অঙ্গীকারে পরম আবেগের সাথে একে অপরকে আলিঙ্গন করে।

রমজান মাস লাভের আশায় অনেক ত্যাগ, কষ্ট, সিয়াম সাধনার পর ঈদ-উল-ফিতর বা ঈদ-উল-ফিতর আমাদের জীবনে নিয়ে আসে সীমাহীন আনন্দ ও আনন্দ। এই আনন্দ আমাদের পরকালের জন্য মুক্তি এবং শান্তির এক অনন্য আধ্যাত্মিক অনুভূতি।

এ কারণেই রমজান মাসের সিয়াম সাধনার পর প্রতিটি রোজাদারের শরীর ও মন আনন্দের জোয়ারে ভরে যায়। সুখ ধনী-গরিব, বড়-ছোট সবার মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে। ঈদের আনন্দে ভাসছে প্রতিটি প্রাণ। ঈদের দিনে বিশেষ কিছু দিন রয়েছে।

ঈদের রাত খুবই কার্যকরী। ঈদের রাতের মতো ঈদের আগের রাতেও কিছু বিশেষ সময় রয়েছে। ঈদের আগের রাতের কিছু বিশেষ আমল উল্লেখ করা হলো:

  • ঈদের আগে অবশ্যই ফিতরা আদায় করতে হবে
  • নতুন চাঁদ দেখা ও দোয়া পড়া
  • ঈদের রাতে নফল ইবাদত
See also  আমি কিংবদন্তির কথা বলছি কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর

সাদাকাতুল ফিতরা উপরে উল্লেখিত ইবাদতের একটি। রমজানের ভুলত্রুটি পূরণের জন্য সাদাকাতুল ফিতরার প্রয়োজন। সাদাকাতুল ফিতর নামাজের সেজদায় সাহুর মতো।

অন্য কথায়, নামাজে ভুল হলে যেমন সাহু সেজদা পূর্ণ করে, তেমনি রোজায় কোনো ভুল হলে সাদাকাতুল ফিতরার মাধ্যমে তার প্রতিকার করা হয়।

শেষ কথাঃ ঈদের আগের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি

ঈদের রাতে সহবাস করতে পারবেন কিনা বা ঈদের আগের রাতে সহবাস করতে পারবেন কিনা তা জানতে আমাদের সম্পূর্ণ পোস্ট পড়ুন।

ঈদের রাতে কোন নারীর সাথে সহবাস করা জায়েয কিনা বা ঈদের আগের রাতে কোন নারীর সাথে সহবাস করা জায়েয কিনা সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চাইলে আমাদের সাথেই থাকুন। ঈদের রাতে কোনো নারীর সাথে সহবাস করা জায়েজ কিনা বা ঈদের আগের রাতে কোনো নারীর সাথে সহবাস করা জায়েজ কিনা তা জানতে চাইলে আমাদের পুরো লেখাটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন, আশা করি আপনি সবকিছু বুঝতে পারবেন।

আজ নয়, ঈদের রাতে স্ত্রীর সাথে সহবাস করতে পারবেন কিনা বা ঈদের আগের রাতে স্ত্রীর সাথে সহবাস করতে পারবেন কিনা সে সম্পর্কে কিছু জানা থাকলে কমেন্ট বক্সে জানাতে পারেন। আমরা আশা করি আপনি এক্সটেনশন উপভোগ করবেন।

আপনি যদি এই পোস্টটি পছন্দ করেন তবে আপনি কি আমাদের ফেসবুক ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলে আমাদের পোস্টটি শেয়ার করতে পারেন? ধন্যবাদ ভিজিট করার জন্য আশাকরি আপনি এখন ঈদের রাতে স্ত্রী সহবাস করা যাবে কি এ সম্পর্কিত বিষয় নিয়ে সঠিক জানেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button