মাধ্যমিক

কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২

আপনি যদি ইতিমধ্যে কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর গুরুত্বপূর্ণ ২০২২ অনুসন্ধান করে থাকেন তবে সঠিক জায়গায় এসেছেন। প্রশ্নের উত্তর গুলো পাশাপাশি দেওয়া হয়েছে। আপনাদের সিলেবাস ও পাঠ্য সম্পর্কিত আরো প্রশ্নোত্তর ও আমাদের সাইটে খুঁজে পাবেন। চলুন শুরু করা যাক।

কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর

সৃজনশীল প্রশ্ন নম্বর ১

উদ্দীপক # ১. সেই সাতজন নেই আজ টেবিলটা তবু আছে।
সাতটা পেয়ালা আজও খালি নেই,
একই সে বাগানে আজ এসেছে নতুন কুঁড়ি
শুধু সেই সেদিনের মালী নেই।।

উদ্দীপক # ২. ঋতু বৈচিত্র্যের সুন্দর জন্মভূমি আমার ।
বিচিত্র রূপ তার শস্য শ্যামল ক্ষেত খামার
প্রিয় জন্মভূমি মা তােমায় ভালােবাসি বেশুমার ।

ক. মধুসূদনের অমর কীর্তি কোনটি?

খ. ‘দুগ্ধস্রোতােরূপী তুমি জন্মভূমি-স্তনে’- কথাটি বুঝিয়ে লেখ।

গ. উদ্দীপক ১ অংশে ‘কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার যে দিকটি ফুটে উঠেছে তা ব্যাখ্যা কর।

ঘ. উদ্দীপক ২ অংশের আড়ালে কবির মূল চেতনারই প্রকাশ ঘটেছে’- মন্তব্যটি ব্যাখ্যা কর।

উপরোক্ত তথ্য অনুযায়ী কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর সম্পর্কিত এই আর্টিকেলে সৃজনশীল প্রশ্নগুলো কেমন হতে পারে তা আপনি দেখে নিয়েছেন। চলুন এবার তবে প্রশ্নের উত্তর সমাধান গুলোও PDF সহ দেখে নেওয়া যাক।

সৃজনশীল প্রশ্ন নম্বর ২ এর উত্তর সমূহ

ক উত্তরঃ মধুসূদনের অমর কীর্তি হচ্ছে ‘মেঘনাদবধ কাব্য।

খ উত্তরঃ  দুগ্ধ-স্রোতােরূপী তুমি জন্মভূমি-স্তনে’- এই কথাটি দিয়ে কবি কপােতাক্ষ নদের স্নেহধারাকে বুঝিয়েছেন।

কপােতাক্ষ নদের স্নেহধারায় সিক্ত হয়ে কবির শৈশব-কৈশাের কেটেছে। কপােতাক্ষ নদকে ঘিরে তার অনেক আনন্দ-বেদনার স্মৃতি রয়েছে। মায়ের দুধ পান করে যেমন সন্তান পুষ্ট হয়, ঠিক তেমনই কপােতাক্ষ নদের জলধারা কবির হৃদয়কে তৃপ্ত করেছে। এই কারণেই কবি কপােতাক্ষ নদকে মায়ের সঙ্গে তুলনা করে আলােচ্য কথাটি বলেছেন।

সারকথা : কবির কাছে কপােতাক্ষ নদ হলাে জন্মভূমির স্তনে দুগ্ধ প্রবাহের মতাে। একমাত্র এ নদের জলই কবির স্নেহের তৃষ্ণা মেটাতে পারে।

গ উত্তরঃ উদ্দীপক ১ অংশে কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার স্মৃতিকাতরতার দিকটি ফুটে উঠেছে।

স্মৃতিবিজড়িত অতীত মানুষকে কাতর করে তােলে। মানুষ তার সুখের অতীত বারবার ফিরে পেতে চায়। অতীতের অনুরাগ, আবেগ, ভালােবাসা কখনাে বিচ্ছিন্ন হওয়ার নয় ।

উদ্দীপক ১-এ লেখক তার সােনালি অতীতের কথা স্মরণ করেছেন। সবাই মিলে কফি হাউজে যে আড্ডা দিত সেই সােনালি সময়, সােনালি বিকেলের কথা ভেবে কাতর হন। এর মাধ্যমে তার সেই দিনগুলাে ফিরে পাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশিত হয়।

See also  জীবন সঙ্গীত কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২

কপােতাক্ষ নদ কবিতায় কবি দূর প্রবাসে গিয়ে মাতৃভূমি ও শৈশবের প্রিয় কপােতাক্ষ নদের কথা মনে করে কাতর হয়েছেন। কবি শৈশবে কপােতাক্ষের তীরের প্রাকৃতিক পরিবেশে হেসে-খেলে বেড়ে উঠেছেন। তাই এই নদের কথা তিনি গভীর আবেগে স্মরণ করেন।

এই নদের কাছে ফিরে যাওয়ার ইচ্ছা পােষণ করেন। কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার এই স্মৃতিকাতরতার দিকটিই উদ্দীপক ১ অংশে ফুটে উঠেছে।

সারকথা : উদ্দীপক ১ অংশে যে স্মৃতিকাতরতা প্রকাশ পেয়েছে তা কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় প্রতিফলিত কবির স্মৃতিকাতরতার সঙ্গে সাদৃশ্যপূর্ণ।

হুবুহু সৃজনশীল প্রশ্ন খবুই কম কমন পড়তে দেখা যায় । তাই এই পোষ্ট কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর pdf এর পাশাপাশি মূল বই থেকে এ সম্পর্কিত আরও বিষয়বলী গুলো ধারণা রাখুন। এতে করে যেভাবেই প্রশ্ন আসুক যাতে আপনি উত্তর দিতে পারেন। চলুন বাকী অংশ পড়ে নেওয়া যাক।

ঘ উত্তরঃ  উদ্দীপক ২ অংশের আড়ালে কবির মূল চেতনারই প্রকাশ ঘটেছে’- মন্তব্যটি যথার্থ। 

মাতৃভূমি মায়ের সমান। নিজ দেশ বা মাতৃভূমিকে ভালােবাসা সকলের দায়িত্ব। সেই ভালােবাসা গড়ে ওঠে দেশের প্রকৃতিকে ভালােবাসার মধ্য দিয়ে। মাতৃভূমির সবকিছুর সাথেই মানুষের আত্মিক সম্পর্ক গড়ে ওঠে । প্রিয় জন্মভূমির আলাে-বাতাসে মানুষ বেড়ে ওঠে। 

উদ্দীপক ২-এর কবিতাংশে স্বদেশপ্রেমের গভীর প্রকাশ লক্ষ করা যায়। স্বদেশের ঋতুবৈচিত্র্যের বিচিত্র রূপ, শস্য-শ্যামল খেতখামার কবিকে মুগ্ধ করেছে। তিনি তার জন্মভূমির প্রতি গভীর বন্ধন ও ভালােবাসার কথা প্রকাশ করেছেন।

অন্যদিকে কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় কবির স্মৃতিকাতরতার আবরণে তাঁর অত্যুজ্জ্বল দেশপ্রেম প্রকাশিত হয়েছে। শৈশবের স্মৃতিচারণে স্বদেশের প্রতি গভীর অনুরাগ ব্যক্ত করেছেন। কপােতাক্ষের জলে তৃষ্ণা মেটানাের কথা বলা হয়েছে। এই নদ ছাড়া অন্য কোনাে নদ-নদীর জল কবির তৃষ্ণা মেটাতে পারে না।

উদ্দীপক ২ অংশে স্বদেশের রূপবৈচিত্র্যের বর্ণনার দিকটি কবির স্বদেশপ্রেমের দিককেই নির্দেশ করে। আর কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় নদনদীর প্রতি কবির প্রীতির নেপথ্যে স্বদেশপ্রেমের চেতনা কাজ করছে, যা উদ্দীপক ২-এর কবির চেতনায়ও প্রতিফলিত। তাই বলা যায়, প্রশ্নোক্ত মন্তব্যটি যথার্থ।

সারকথা : উদ্দীপক ২ অংশে ‘কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় প্রতিফলিত কবির স্বদেশপ্রেমের চেতনার প্রতিফলন ঘটেছে। উভয় ক্ষেত্রেই বাংলার শ্যামল রূপের প্রতি গভীর মুগ্ধতা প্রকাশ পেয়েছে।

প্রিয় পাঠক আপনি ইতিমধ্যে আমাদের সাইটের মাধ্যমে কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর ১টি পূর্ণাঙ্গ সম্পন্ন করেছেন। চলুন এ সম্পর্কিত আরও একটি দেখে নেওয়া যাক।

See also  মানুষ মুহম্মদ (স) প্রবন্ধের সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর

কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্নের উত্তর

সৃজনশীল প্রশ্ন নম্বর ২

আমি বাংলার গান গাই
আমি বাংলার গান গাই।
আমি, আমার আমিকে এই বাংলায় খুঁজে পাই।

ক. মাইকেল মধুসূদন দত্ত কয়টি প্রহসন রচনা করেছেন?

খ. স্নেহের তৃষ্ণা’ অর্থ কী? ব্যাখ্যা কর।

গ. উদ্দীপকে কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার ভাব প্রকাশিত হয়েছে কীভাবে? ব্যাখ্যা কর।

ঘ. দেশপ্রেম প্রকাশে উদ্দীপক ও কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার বক্তব্য বিশ্লেষণ কর।

সৃজনশীল প্রশ্ন নম্বর ২ এর উত্তর সমূহ

ক উত্তরঃ মাইকেল মধুসূদন দত্ত দুটি প্রহসন রচনা করেছেন।

খ উত্তরঃ ‘স্নেহের তৃষ্ণা’ বলতে কবি জন্মভূমির প্রতি গভীর অনুরাগে কপােতাক্ষ নদের স্নেহধারা পাওয়ার ব্যাকুলতাকে বুঝিয়েছেন।

স্বদেশ থেকে বহু দূরে ফ্রান্সে বসবাস করার সময় কবি জন্মভূমির প্রতি গভীর টান অনুভব করেন। জন্মভূমির শৈশব-কৈশােরের অম্লমধুর স্মৃতি কবিকে কাতর করে। তিনি তার গভীর অনুভবে প্রবাসে থেকেও কপােতাক্ষ নদের জলধারার কলকল ধ্বনি শুনতে পান।

এই নদ যেন কবিকে মায়ের স্নেহডােরে বেঁধে রেখেছে। তাই সেই নদের স্নেহধারা পেতে তিনি ব্যাকুল হন। তাঁর সমস্ত স্নেহতৃষ্ণার জল যেন বুকে ধারণ করে বয়ে চলছে কপােতাক্ষ । পৃথিবীর বহু দেশ ঘুরে বহু নদ-নদী তিনি দেখেছেন। তবু কপােতাক্ষকে তিনি ভুলতে পারেন না।

কারণ কপােতাক্ষ তাকে যে মাতৃস্নেহে জড়িয়ে রেখেছে তা আর কোনাে নদ-নদী পারেনি। তাই কবি স্বদেশে ফিরে গিয়ে মায়ের স্নেহডােরে নিজেকে বাঁধতে চান, কপােতাক্ষের জলে তার স্নেহের তৃষ্ণা নিবারণ করতে চান।

সারকথা : কপােতাক্ষ নদের জল ছাড়া কবিহৃদয়ের তৃষ্ণা নিবারণ হয় না। কবির এ অনুরাগ ও অনুভূতি জন্মভূমির প্রতি তাঁর গভীর ভালােবাসার প্রকাশ।

গ উত্তরঃ উদ্দীপকে ‘কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার স্বদেশপ্রেমের ভাব প্রকাশিত হয়েছে।

জন্মভূমির প্রতি অনুরাগ ও ভালােবাসা মানুষকে গৌরব দান করে। স্বদেশের মাটির সঙ্গে নিজেকে সম্পৃক্ত করে মানুষ ধন্য হয়।

স্বদেশের দান গ্রহণ করে সে আত্মতৃপ্তি লাভ করে। নিজেকে মর্যাদাবান মনে করে। উদ্দীপকের কবিতাংশে মাতৃভাষা ও মাতৃভূমির প্রতি কবির গভীর অনুরাগ প্রকাশ পেয়েছে। কবি তার প্রিয় মাতৃভাষা বাংলায় গান গেয়ে তৃপ্ত হন। নিজেকে চিরদিন বাংলার মাঝেই খুঁজে পান।

এ ভাবটি কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায়ও প্রতিফলিত হয়েছে। কবি তার দেশকে এবং দেশের প্রতিটি বস্তুকে মন-প্রাণ দিয়ে ভালােবাসেন। এ কারণেই তিনি প্রবাসে বসেও শৈশবের প্রিয় কপােতাক্ষ নদকে স্মরণ করেছেন।

See also  সেই দিন এই মাঠ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর

কবি কপােতাক্ষ নদকে মিনতি করেছেন স্বদেশের জন্য তাঁর হদয়ের কাতরতা বঙ্গবাসীর কাছে সে যেন পৌঁছে দেয়, তাদের কাছে তা ব্যক্ত করে। এভাবে কবিতায় প্রকাশিত কবির এই অত্যুজ্জ্বল দেশপ্রেম উদ্দীপকে প্রকাশ পেয়েছে।’

সারকথা : কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় প্রবাসজীবনে কবি তাঁর শৈশবের ‘কপােতাক্ষ নদকে স্মরণ করে স্মৃতিকাতর হয়েছেন। এখানে কবির যে স্বদেশপ্রেম প্রকাশ পেয়েছে, তার সঙ্গে উদ্দীপকে প্রতিফলিত স্বদেশপ্রেমের দিকটি সাদৃশ্যপূর্ণ।

আপনি এই পোষ্টে কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্নের উত্তর  নিয়ে পড়তেছেন। এটি পূর্ণাঙ্গ পড়া শেষে আপনি এ সম্পর্কিত আরও পাঠ্য আমাদের সাইটে খুঁজে পেতে সার্চ বক্সে অনুসন্ধান করতে পারেন। চলুন বাকী অংশ পড়ে নেওয়া যাক।

ঘ উত্তরঃ দেশপ্রেম প্রকাশে উদ্দীপক ও কপােতাক্ষ নদ’ কবিতার ভাব একই ধারায় প্রবাহিত।

মানুষ জন্মভূমির স্নেহ-ভালােবাসা, আলাে-বাতাসে বেড়ে ওঠে। এজন্য মানুষ বিশ্বের যে প্রান্তেই যাক বা থাকুক না কেন, স্বদেশকে সে কিছুতেই ভুলতে পারে না। মাতৃভূমির প্রতি সে আত্মার টান অনুভব করে।

উদ্দীপকের কবিতাংশে মাতৃভূমি ও মাতৃভাষার প্রতি কবির গভীর অনুরাগ প্রকাশিত হয়েছে। কবি তাঁর প্রিয় মাতৃভাষা বাংলায় গান গেয়ে আত্মতৃপ্তি লাভ করেন। প্রিয় মাতৃভূমির মাঝেই তিনি নিজেকে খুঁজে পান। উদ্দীপকের এই স্বদেশপ্রেমের সার্থক প্রকাশ কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায়ও লক্ষ করা যায়।

কবি তাঁর দেশকে এতটাই ভালােবাসেন যে দীর্ঘদিন প্রবাসে থেকেও শৈশবের স্মৃতিবিজড়িত ছােট নদটিকে ভুলতে পারেননি। বিদেশ-বিভুইয়ে বসে তাকে গভীর আবেগে স্মরণ করেছেন। তার জলকে মাতৃদুগ্ধ বলে অভিহিত করছেন।

কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় কবির স্মৃতিকাতরতার আবরণে তার অত্যুজ্জ্বল দেশপ্রেম প্রকাশিত হয়েছে। জন্মভূমির শৈশব-কৈশােরের অম্লমধুর অসংখ্য স্মৃতি কবিকে কাতর করে তুলেছে। তিনি শৈশবের প্রিয় নদ কপােতাক্ষকে স্মরণ করেছেন। তার কাছে মিনতি করেছেন যেন তার হৃদয়ের কাতরতা দেশের প্রত্যেকের কাছে ব্যক্ত করে। উদ্দীপক ও আলােচ্য কবিতায় এভাবেই দেশপ্রেমের বিষয়টি প্রকাশ পেয়েছে।

সারকথা : উদ্দীপকের কবিতাংশে কবির অনুভূতি এবং কপােতাক্ষ নদ’ কবিতায় কবির স্বদেশপ্রেমের অনুভূতি এক ও অভিন্ন। উভয় ক্ষেত্রেই স্বদেশের প্রতি কবিদ্বয়ের গভীর অনুরাগ ও ভালােবাসা প্রকাশ পেয়েছে।

প্রিয় পাঠক আশাকরি আপনার কাঙ্খিত তথ্য কপোতাক্ষ নদ কবিতার সৃজনশীল প্রশ্ন ও উত্তর ২০২২ আমাদের সাইটের মাধ্যমে সহজেই বুঝে নিতে পেরেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button