প্রযুক্তি

জন্ম নিবন্ধন যাচাই অনলাইন চেক apps 2022

আসসালামু আলাইকুম প্রিয় পাঠক। আশা করি আপনি অনেক ভালো আছেন। আবারো হাজির হয়ে গেলাম আপনাদের সামনে নতুন একটি টিউটোরিয়াল নিয়ে। বর্তমান সময়ে আপনি প্রাতিষ্ঠানিক যেকোনো কাজ করতে যান না কেন, অবশ্যই আপনাকে জন্ম নিবন্ধন সংগ্রহ করতে হবে। কারণ জন্ম নিবন্ধন ছাড়া সন্তানকে স্কুলে ভর্তি,টিকা প্রদান ও অন্যান্য সকল কাজ করতে পারবেন না।

এজন্য অবশ্যই আপনাকে জন্ম নিবন্ধন করতে হবে। বর্তমান সময়ে তথ্য প্রযুক্তির কল্যাণে আপনি ঘরে বসে জন্ম নিবন্ধনের আবেদন করতে পারে। পাশাপাশি আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদটি সঠিক আছে কিনা তা যাচাই করতে পারবেন। আপনি যদি ঘরে বসে অনলাইনের মাধ্যমে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে চান। তাহলে অবশ্যই আজকের আর্টিকেল মনোযোগ সহকারে পড়বেন। কারণ আজকের আর্টিকেলে আমরা জন্ম নিবন্ধন যাচাই অনলাইন চেক apps বিস্তারিত আলোচনা করব। চলুন আজকের মূল আলোচনা শুরু করি। 

জন্ম নিবন্ধন যাচাই অনলাইন চেক apps 2022

আমাদের মধ্যে অনেকে আছে যারা অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছেন। কিন্তু সঠিক কোন টিউটোরিয়াল পাচ্ছেন না। তাদের জন্য আজকের আর্টিকেল খুবই গুরুত্বপূর্ণ হতে যাচ্ছে। কারণ আজকের আর্টিকেলে আমরা সহজ উপায়ের মাধ্যমে কিভাবে আপনি অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করবেন তা দেখানো হবে। তাই অবশ্যই আপনাকে মনোযোগ সহকারে আর্টিকেলটি পড়তে হবে। 

আপনি যখন জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করবেন বা জন্ম নিবন্ধন এর জন্য আবেদন করেছেন। এখন কিন্তু আপনার আবেদন প্রক্রিয়াটি সঠিক আছে কিনা তা যাচাই করা দরকার। অথবা দেখা যায় আমাদের অনেক সময় ইচ্ছাকৃত বা অনিচ্ছাকৃত জন্ম নিবন্ধনে নানা রকমের ভুল হয়ে থাকে। তাই আপনি যদি সেই ভুলগুলো সংশোধন করতে চান। 

তাহলে কিন্তু অবশ্যই জন্ম নিবন্ধন যাচাই অনলাইন চেক apps সম্পর্কে জানতে হবে। কারন আপনি এই অ্যাপের মাধ্যমে আপনার জন্ম নিবন্ধনটা যাচাই করতে পারবেন। অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার জন্য আপনার একটি ডিভাইস ও ইন্টারনেট কানেকশন লাগবে। স্মার্ট ফোন বা কম্পিউটার যেকোনো ডিভাইস দিয়েই যাচাই করতে পারবেন। চলুন এ সম্পর্কে আরো বিস্তারিত তথ্য দেখে নেই।

See also  আনঅফিসিয়াল ফোন অফিসিয়াল করার উপায়

অনলাইনে অ্যাপের মাধ্যমে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার জন্য আপনাকে একটি অ্যাপ্লিকেশন ডাউনলোড করতে হবে। এর জন্য গুগল প্লে স্টোরে “জন্ম নিবন্ধন যাচাই অ্যাপ” লিখে সার্চ করুন।

  • তারপর আপনার সামনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই অ্যাপ চলে আসবে। এখন আপনাকে অ্যাপটি ইন্সটল করতে হবে। ইন্সটল করার পর অ্যাপটি ওপেন করুন। 
  • জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে আপনাকে জন্ম নিবন্ধন কার্ড বা আবেদন ফরম হাতে নিতে হবে। এখন আপনাকে ২ টি খালি বক্সে জন্ম নিবন্ধন তথ্য দিলে আপনার জন্ম নিবন্ধন কি অবস্থায় আছে তা জানতে পারবেন। 
  • প্রথম খালি বক্সে জন্ম নিবন্ধন সনদে থাকা ১৭ ডিজিটের জন্ম নিবন্ধন নাম্বার প্রদান করুন। এরপর দ্বিতীয় বক্সে জন্ম নিবন্ধন সনদে থাকা জন্ম তারিখ প্রদান করুন। 
  • জন্ম নিবন্ধনে থাকা ১৭ ডিজিটের সংখ্যা ও জন্ম তারিখ অনুক্রমে যেন ভুল না হয়,সে বিষয়ে আপনাকে লক্ষ্য রাখতে হবে। কারণ ভুল তথ্য প্রদান করলে আপনার জন্ম নিবন্ধন বর্তমান কি অবস্থায় আছে তা জানতে পারবেন না। এজন্য অবশ্যই আপনাকে সঠিক তথ্য দিয়ে বক্সগুলো ফিলাপ করতে হবে। 
  • সর্বশেষ বক্সে আপনাকে একটি ক্যাপচা পূরণ করতে হবে। ক্যাপচা হিসেবে থাকা সহজ গাণিতিক সমস্যার সমাধান লিখুন বক্সটিতে। সচরাচর দুটি সংখ্যার যোগফল নির্ণয় করতে হয়। 
  • ৩টি বক্সে সঠিক তথ্য প্রদান করার পর Verify বাটনে ক্লিক করুন। Verify বাটনে ক্লিক করার পর, যে ব্যক্তির জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে চাচ্ছেন, তার সকল তথ্য যদি স্ক্রিনে প্রদর্শিত হয়। তাহলে বুঝবেন আপনার যাচাই করা সম্পূর্ণ হয়েছে।
  • এছাড়াও যদি Verify বাটনে ক্লিক করার পর Matching Birth Records Not Found লেখা আসে, তাহলে বুঝবেন উল্লেখিত দুটি বক্সে দেওয়া জন্ম নিবন্ধনের ১৭ ডিজিটের সংখ্যা বা জন্ম তারিখ কোন একটি ভুল হয়েছে। 
See also  মোবাইল ফোন ব্যবহারের অপকারিতা সমূহ সম্পর্কে

উপরে উল্লেখিত ধাপগুলো অনুসরণ করে আপনি খুব সহজে অনলাইনে অ্যাপের মাধ্যমে জন্ম নিবন্ধন কি অবস্থায় রয়েছে তা যাচাই করতে পারবেন। এছাড়াও আপনি ওয়েবসাইটের মাধ্যমেও এই কাজটি করতে পারেন। ওয়েবসাইটের মাধ্যমে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করা আরো সহজ। 

জন্ম নিবন্ধন ডাউনলোড করার নিয়ম

বর্তমান সময়ে জন্ম নিবন্ধন হাতে পাওয়ার জন্য আপনাকে আর ইউনিয়ন পরিষদের যেতে হবে না। ঘরে বসেই আপনি জন্ম নিবন্ধন সংগ্রহ করতে পারবেন। এজন্য আপনাকে অনলাইন থেকে সংগ্রহ করতে হবে। উপরের পদ্ধতি গুলোর মাধ্যমে আপনার জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার পরে যদি সঠিক মনে হয়। তাহলে কিন্তু খুব সহজে আপনি অনলাইন থেকে ডাউনলোড করতে পারবেন। এইজন্য আপনাদের সুবিধার্থে অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন ডাউনলোড করার নিয়ম বর্ণনা করবো। যা আপনাদের কাছে আসতে পারে। 

১. অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন ডাউনলোড করার জন্য আপনাকে একটি ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে। https://everify.bdris.gov.bd/

২. ওয়েবসাইটে প্রবেশ করার পর,আপনার সামনে এমন একটি বক্স আসবে। আপনাকে মূলত এই তিনটি বক্স ফিলাপ করতে হবে।

৩. প্রথম খালি বক্সে যার জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই করতে চান। তার জন্ম নিবন্ধন সনদের ১৭ ডিজিটের নাম্বার প্রদান করুন।

৪. দ্বিতীয় বক্সে যার জন্ম নিবন্ধন সনদ তার জন্ম তারিখ মাস ও সাল দিতে হবে। অবশ্যই এ দুটি বক্স ফিলাপ করার সময় আপনাকে সতর্ক থাকতে হবে। কোনক্রমেই ভুল করা যাবে না। 

৫. তৃতীয় বক্সে আপনাকে একটি ক্যাপচা পূরণ করতে হবে। ক্যাপচা হিসেবে থাকা সহজ গাণিতিক সমস্যার সমাধান লিখুন বক্সটিতে। সচরাচর দুটি সংখ্যার যোগফল বা বিয়োগফল নির্ণয় করতে হয়। 

৬. সব গুলো বক্স সঠিক ভাবে ফিলাপ করার পর, Verify বাটনে ক্লিক করুন। Verify বাটনে ক্লিক করার পর, যে ব্যক্তির জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে চাচ্ছেন, তার সকল তথ্য যদি স্ক্রিনে প্রদর্শিত হয়। তাহলে আপনি প্রিন্ট বাটনে ক্লিক করে ডাউনলোড করতে পারেন। 

See also  টেলিটক সিমের নাম্বার দেখার উপায় (Teletalk sim number check 2022)

৭. আবার যদি Verify বাটনে ক্লিক করার পর, Matching Birth Records Not Found লেখা আসে, তাহলে বুঝবেন উল্লেখিত দুটি বক্সে দেওয়া জন্ম নিবন্ধনের ১৭ ডিজিটের সংখ্যা বা জন্ম তারিখ কোন একটি ভুল হয়েছে।

উপরোক্ত এই কয়েকটি পন্থা অবলম্বন করে আপনি খুব সহজে অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন ডাউনলোড করতে পারবেন। তবে অবশ্যই আপনাকে সঠিক তথ্য দিয়ে ফর্ম গুলো ফিলাপ করতে হবে। সঠিক তথ্য দেওয়ার পরেই আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদ হাতে পাবেন। 

পরিশেষে কিছু কথা

এই ছিল আজকে জন্ম নিবন্ধন যাচাই অনলাইন চেক apps ও অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন সনদ ডাউনলোড সম্পর্কে আমাদের সংক্ষিপ্ত আলোচনা। আশা করি,যারা অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে পারছেন না, আজকের ধাপগুলো অনুসরণ করলে আপনি সহজে যাচাই করতে পারবেন। যাচাই করার পাশাপাশি আপনি অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন সনদ ডাউনলোড করতে পারেন। 

বর্তমান সময়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ভর্তি থেকে শুরু করে প্রায় সকল কাজেই শিশুর জন্ম নিবন্ধন প্রয়োজন হয়। শুধু শিশু নয় প্রায় সকল বয়সের মানুষের জন্ম নিবন্ধন সনদ গুরুত্বপূর্ণ একটি সার্টিফিকেট। এই জন্য আপনার যদি জন্ম নিবন্ধন সনদ না থাকে। তাহলে অতি দ্রুতই অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন সনদের জন্য আবেদন করুন। 

অথবা আপনার যদি জন্ম নিবন্ধন সনদে কোথাও ভুল থাকে তাহলে সংশোধন করতে হবে। ভুলগুলো সংশোধন করার পর, আপনাকে অনলাইনে যাচাই করতে হবে। অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার পর আপনার যদি সকল তথ্য সঠিক থাকে। তাহলে সর্বশেষ আপনি জন্ম নিবন্ধন সনদ ডাউনলোড করে যেকোন কাজে ব্যবহার করতে পারেন। এতক্ষণ আমাদের সময় দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ। 

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button